শুক্রবার, ডিসেম্বর 3, 2021
শুক্রবার, ডিসেম্বর 3, 2021
HomeFact Checkলাদাখ সীমান্তে যুদ্ধে মৃত জওয়ানদের ধরে ভারতীয় সেনাদের কান্নার নামের ভাইরাল...

লাদাখ সীমান্তে যুদ্ধে মৃত জওয়ানদের ধরে ভারতীয় সেনাদের কান্নার নামের ভাইরাল ভিডিওটি ইন্দো-চীন যুদ্ধের সাথে সম্পর্কিত নয়

দাবি:

ভারত ও চীনের মধ্যে যুদ্ধ লাগার সম্ভাবনা অনেক দিন ধরেই ছিল। অবশেষে শুরু হয় ৪৫ বছরের মধ্যে সব থেকে ভয়ঙ্কর যুদ্ধ।  ১৭ই  জুন জানা যায় এই  যুদ্ধে ২০জন ভারতীয় সেনার মৃত্যু হয়েছে। ভারতীয়দের মধ্যে এই নিয়ে যথেষ্ট টেনশনের পরিস্থিতি তৈরী হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়াতে ইন্দো-চায়না যুদ্ধে মৃত যোদ্ধাদের প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ্য জানিয়ে পোস্ট দেখতে পাচ্ছি। এর মধ্যে একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে, যেখানে দেখা যাচ্ছে কিছু জওয়ান তাদের মৃত সহকর্মীদের দেহ জড়িয়ে কাঁদছে।  ভিডিওটি শেয়ার করার সাথে যে লাইনটি লেখা হয়েছে  তা হলো – এরাই হলো আমাদের দেশের মহান হিরো। 

https://www.facebook.com/karthik.sabi.7/videos/2617726505164687/
https://archive.is/of7jK
https://archive.is/XfDmf

এই একই ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে  আর বলা হয়েছে লাদাখ  সীমান্তে ভারতীয় সৈনিকদের যুদ্ধে মৃত ৩৫ জন  সেনাদের দেহ জড়িয়ে কান্না –

https://archive.is/oelQE
https://archive.is/Xn69S

বিশ্লেষণ: গালওয়ান প্রদেশে  বর্ডার ঘিরে শুরু হয়েছে ইন্দো-চায়না যুদ্ধ।  কয়েকমাস ধরে যা অনিশ্চত ছিল, বর্ডার সীমান্তে ভারতীয় সেনা সংখ্যা বাড়ানো, সুরক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে বৈঠক এই অনিশ্চয়তাকে দূর করে এবং জানান দেয় যুদ্ধের শুরুর।  ইতিমধ্যেই ভারত তার ২০জন বীর সন্তানকে হারিয়েছে এই যুদ্ধে।  যদিও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানিয়েছেন যে এই বলিদান তিনি বৃথা হতে দেবেন না।  

https://bangla.hindustantimes.com/nation-and-world/at-least-20-indian-soldiers-dead-in-clash-with-china-in-galwan-valley-government-sources-31592324573099.html
https://bengali.indianexpress.com/general-news/20-indian-army-men-killed-in-clashes-in-galwan-with-china-army-232827/
https://economictimes.indiatimes.com/news/defence/modi-warns-china-sacrifice-of-jawans-will-not-go-in-vain-india-capable-of-giving-befitting-reply/videoshow/76425609.cms

সোশ্যাল মিডিয়াতে যে ভিডিওটির উল্লেখ আমরা করেছি, প্রথমত ভিডিওটি ভালো করে দেখলে দূরে একটি সবুজ রঙের পর্দা মতো চোখে পড়বে, যা অবাক করে কারণ যুদ্ধ সীমান্তে এই ধরণের পর্দার কোনো উপস্থিতি থাকে না, দ্বিতীয়ত, যে জওয়ানরা তাদের সহ সৈনিকদের মৃতদেহ জড়িয়ে কাঁদছে তা অতি নাটকীয় মনে হচ্ছে দেখে, যেন কেউ আগে থেকেই রেডি ছিল ক্যামেরা নিয়ে শুরু তাদের কাঁদার অপেক্ষা হচ্ছিলো।  

ভিডিওটি আমরা কিছু ফ্রেমে ভাগ করে নিয়ে রিভার্স ইমেজ সার্চ করতেই বেরিয়ে আসে আসল ভিডিওটি।  ইউটুবের  থেকে আমরা এই একই ভিডিও পাই যা আপলোড করা হয়েছে ২০১৯ সালে।  রিয়া মিউজিক নামের একটি ইউটুব চ্যানেল থেকে ১২ নভেম্বর ২০১৯ সালে ‘ দেবতাদের বর্ধনের থেকেও বেশি এক মায়ের আশীর্বাদের মধ্যে বেশি শক্তি আছে’ এই ক্যাপশনটি জুড়ে ভিডিওটি আপলোড করা হয়েছিল।  যদিও পুরো ভিডিওটি নেই।  অর্ধেক এই ভিডিও আর বাকি অর্ধেকে রামায়ণের একটি সিন দেওয়া হয়েছে।  

https://youtu.be/ao3Bc45lRd8

এটি ছাড়াও আমরা একটি অন্য ক্যাপশন দিয়ে এই ভিডিওটি পাই যেখানে লেখা আছে ১৪ই  ফেব্রূয়ারি পুলবামা আক্রমণ।  এই ভিডিওটিতে U Video র লোগো আমরা দেখতে পাই এবং এটি নীতিশ কুমার যাদব নামের চ্যানেলে ১৪ই ফেব্রূয়ারি ২০২০ সালে আপলোড  করা হয়েছে।  

ভারত-চীনের মধ্যে যুদ্ধের ফলে লাদাখ সীমান্তে ৩৫ জন সেনাদের মৃত্যু দেখে ভারতীয় সেনাদের কান্নার নাম দিয়ে যে ভিডিও গুলো শেয়ার হয়েছে তা আসলে পুরোনো ভিডিও।  ভিডিওটির সাথে ইন্দো-চায়না যুদ্ধের  কোনো সম্পর্ক নেই।  ভিডিওটি এই যুদ্ধের আগে থেকেই ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়াতে। 

ব্যবহৃত টুলস: 

  • Yandex search
  • Google reverse image search 
  • Youtube search 

ফলাফল: বিভ্রান্তিকর Misleading

(সন্দেহজনক কোনো খবর ও তথ্য সম্পর্কে আপনার প্রতিক্রিয়া জানাতে অথবা সত্যতা জানতে আমাদের লিখে পাঠান checkthis@newschecker.in অথবা whatsapp করুন- 9999499044 এই নম্বরে। ) 

Paromita Das
With a penchant for reading, writing and asking questions, Paromita joined the fight to combat and spread awareness about fake news. Fact-checking is about research and asking questions, and that is what she loves to do.
Paromita Das
With a penchant for reading, writing and asking questions, Paromita joined the fight to combat and spread awareness about fake news. Fact-checking is about research and asking questions, and that is what she loves to do.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular