শুক্রবার, জুন 14, 2024
শুক্রবার, জুন 14, 2024

HomeFact CheckFact Check: চিনে তৈরি হওয়া, “বিষাক্ত” আতশবাজির বিরুদ্ধে কোনও পরামর্শ জারি করেনি...

Fact Check: চিনে তৈরি হওয়া, “বিষাক্ত” আতশবাজির বিরুদ্ধে কোনও পরামর্শ জারি করেনি ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক

Claim
ভারতে হাঁপানি ছড়িয়ে দেওয়ার উদ্দেশ্যে কার্বন মনোক্সাইড গ্যাস ব্যবহার করে বিশেষ ধরনের বিষাক্ত আতশবাজি তৈরি করেছে চিন। তা থেকে সতর্ক করে ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক জরুরি বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে।

Fact
ভারতীয় নাগরিকদের চিনা পণ্য বয়কট করার ডাক দেওয়া একটি ভিত্তিহীন বার্তা সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা হয়েছিল এবং ওই বার্তায় খামোকা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের নাম জড়িয়ে দেওয়া হয়েছিল। ওই দাবি ভিত্তিহীন ও মিথ্যা।

দীপাবলি সমাগত। তার সঙ্গে তাল মিলিয়ে বিভিন্ন গুজব সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে,  যার মধ্যে একটি সম্প্রতি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের বার্তা হিসাবে ভাইরাল হয়েছে। ভারতীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের একজন সিনিয়র তদন্তকারী অফিসার বিশ্বজিৎ মুখার্জির নামোল্লেখ থাকা ওই ভাইরাল বার্তায় বলা হয়েছে- “গোয়েন্দা তথ্য অনুসারে, পাকিস্তান যেহেতু সরাসরি ভারতে আক্রমণ করতে পারে না তাই তারা ভারতের উপরে প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য চিনের দ্বারস্থ হয়েছে। ভারতে হাঁপানি ছড়াতে কার্বন মনোক্সাইড গ্যাস ব্যবহার করে বিশেষ ধরনের বিষাক্ত আতশবাজি তৈরি করেছে চিন। এছাড়াও,  ভারত চোখের রোগ ছড়িয়ে দিতে আলোকসজ্জায় ব্যবহৃত বিশেষ লাইট তৈরি করেছে তারা যেখানে প্রচুর পরিমাণে পারদ ব্যবহার করা হয়েছে। অনুগ্রহ করে দীপাবলিতে সচেতন থাকুন এবং এই চিনা পণ্যগুলি ব্যবহার করবেন না। সমস্ত ভারতবাসীর কাছে এই বার্তাটি ছড়িয়ে দিন।”

আপনি এখানে ক্লিক করে এই পোস্ট দেখতে পারেন।

একই দাবি করে বিভিন্ন ফেসবুক ব্যবহারকারীও ওই পোস্ট করেছেন। সেগুলির মধ্যে কয়েকটি এখানে, এখানেএখানে ক্লিক করে দেখা যেতে পারে।

Fact Check / Verification

এই ভাইরাল ছবি ও বার্তাগুলির সত্যতা যাচাই করার জন্য আমরা প্রথমে পোস্টটি ইংরেজিতে অনুবাদ করি এবং প্রাসঙ্গিক কি-ওয়ার্ড ব্যবহার করে ইন্টারনেটে অনুসন্ধান শুরু করি। সেখানে আমরা ভারত সরকারের অধীনস্থ গোষ্ঠী প্রেস ইনফরমেশন ব্যুরোর একটি পুরোনো টুইট  দেখতে পাই। টুইটটি এখানে বা নীচে ক্লিক করে দেখা যেতে পারে। ওই টুইট অনুসারে ভাইরাল বার্তাটি ভুল এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক এমন কোনও নোটিস জারি করেনি।

আমরা প্রেস ইনফরমেশন ব্যুরো এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের ওয়েবসাইটে প্রেস বিজ্ঞপ্তিগুলি পরীক্ষা করেছি কিন্তু এই বিষয়ে কোনও বিবৃতি পাইনি।

আমরা তখন গুয়াহাটির প্রেস ইনফরমেশন ব্যুরোর অফিসার বর্নালী মহন্তের সঙ্গে যোগাযোগ করি এবং তাঁকে ওই ভাইরাল পোস্ট সম্পর্কে অবহিত করি। তিনি জানান, “এটি এমন একটি পোস্ট- যা প্রায় প্রতি বছর দীপাবলির সময় সোশ্যাল মিডিয়া এবং হোয়াটসঅ্যাপে ছড়িয়ে পড়ে। এইসব পোস্টে বিশ্বাস করার কোনও দরকার নেই। ভারত সরকারের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক এমন কোনও বিজ্ঞপ্তি সম্প্রতি জারি করেনি।”

উল্লেখ্য, সেই ২০১৯ সাল থেকেই বার্তাটি ইংরেজিতেও প্রচারিত হয়ে আসছে।

Conclusion

নিউজচেকারের অনুসন্ধান থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী ভাইরাল পোস্টটি ভিত্তিহীন। ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক এ ধরনের কোনও নির্দেশনা বা আহ্বান জারি করেনি। ভাইরাল পোস্টগুলি ভুয়ো।

Result: False

Our Sources:
1. X post by Press Information Bureau, dated October 18, 2021
2. Telephonic conversation with Communication Officer, PIB Guwahati


সন্দেহজনক কোনো খবর ও তথ্য সম্পর্কে আপনার প্রতিক্রিয়া জানাতে অথবা সত্যতা জানতে আমাদের লিখে পাঠান checkthis@newschecker.in অথবা whatsapp করুন- 9999499044 এই নম্বরে। আমাদের whatsapp চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন এখানে ক্লিক করে।এছাড়াও আমাদের সাথে Contact Us -র মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারেন ও ফর্ম ভরতে পারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular